ছাতকে বিকাশ প্রতারনার মাধ্যমে হাতিয়ে নেয়া টাকা উদ্ধার

প্রকাশিত: ২৩ সেপ্টেম্বর ২০২১, ১০:৪৫ পূর্বাহ্ণ

 


ছাতক প্রতিনিধি::ছাতকে এক কলেজ ছাত্রীর একাউন্ট থেকে বিকাশ প্রতারনার মাধ্যমে হাতিয়ে নেয়া টাকা উদ্ধার করা হয়েছে। তথ্য-প্রযুক্তি ব্যবহার করে হাতিয়ে নেয়া ২৫ হাজার টাকা উদ্ধার করে পুলিশ। সোমবার সন্ধ্যায় উদ্ধাকৃত টাকা ওই কলেজ ছাত্রী রেহেনা বেগমের হাতে তুলে দেন ছাতক থানার অফিসার ইনচার্জ শেখ নাজিম উদ্দিন। রেহেনা বেগম ছাতক সদর ইউনিয়নের ব্রাহ্মনগাঁও গ্রামের ফয়জুল ইসলামের কন্যা ও ছাতক সরকারী ডিগ্রি কলেজের দ্বাদশ শ্রেণীর ছাত্র।

জানা যায়, গত ২৯ আগষ্ট শিক্ষা মন্ত্রনালয়ের কর্মকর্তার পরিচয় দিয়ে ০১৮৯৩৯০৫৪৮১ নাম্বার হতে রেহেনা বেগমের মুঠো ফোনে কল করে তার উপবৃত্তির টাকা এসেছে জানিয়ে লাইন কেটে দেয়। কিছুক্ষণ পরে আবার একই পরিচয় দিয়ে ০১৮৮৮৫৫৫৮২৩ নাম্বার হতে ফোন করে প্রতারক চক্র ওই ছাত্রীর নাম-ঠিাকানা জিজ্ঞেস করে এবং উপবৃত্তির টাকা পেতে হলে ছাত্রীর ব্যবহৃত মোবাইল একাউন্টে ২৫ হাজার টাকা বিকাশ করতে বলে। উপবৃত্তির টাকা প্রাপ্তির আসায় রেহেনা বেগম তার মোবাইল একাউন্টে ২৫ হাজার টাকা বিকাশ করে। পরে প্রতারক চক্র বিভিন্ন কৌশলে ছাত্রীর বিকাশ একাউন্টের পিনকোড জেনে নেয়। কিছক্ষণ পর আবারো প্রতারক চক্র ছাত্রীর নাম্বারে আরো ২৫ হাজার টাকা বিকাশ করতে বললে তার কিছু সন্দেহের সৃষ্টি হয়। এক পর্যায়ে রেহেনা তার একাউন্ট ব্যালেন্স চেক করে দেখে তার একাউন্টে কোন টাকা নেই। তখনই বুঝতে পারে সে প্রতারনার শিকার হয়েছে। এ ব্যাারে ২৯ আগষ্ট রেহেনা বেগম ছাতক থানায় একটি জিডি এন্ট্রি করেন। জিডির প্রেক্ষিতে ছাতক থানার এসআই আসাদুজ্জামান রাসেল তথ্য-প্রযুক্তি ব্যবহার করে কলেজ ছাত্রী খোয়া যাওয়া টাকা উদ্ধার করেন।